শিরোনাম

কলাপাড়ায় মধ্যযুগীয় কায়দায় গৃহবধুকে অমানবিক নিযাতন, মামলা না নেয়ার অভিযোগ ॥

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : সোমবার, এপ্রিল ১৯, ২০২১ ৮:০৬:৩২ অপরাহ্ণ
কলাপাড়ায় মধ্যযুগীয় কায়দায় গৃহবধুকে অমানবিক নিযাতন, মামলা না নেয়ার অভিযোগ ॥
কলাপাড়ায় মধ্যযুগীয় কায়দায় গৃহবধুকে অমানবিক নিযাতন, মামলা না নেয়ার অভিযোগ ॥

রাসেল কবির মুরাদ , কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধি    ঃ  কলাপাড়ায় জোসনা
বেগম (৩০) নামে এক গৃহবধুকে মধ্যযুগীয় কায়দায় অমানবিক নিযার্তনের অভিযোগ
পাওয়া গেছে। বিদেশ ফেরৎ এক প্রবাসী ১৬ এপ্রিল মধ্যে রাতের দিকে ধুলাসার
ইউপির চরচাপলী গ্রামে গৃহবধুকে গাছের গুড়ি দিয়ে বেধরক পেটানোর পর
প্রভাবশালী ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা নেয়নি পুলিশ এ অভিযোগ নির্যাতীতার
স্বজনদের। বর্তমানে জোসনা শরীরের বিভিন্ন স্থানে ক্ষতচিহ্ন নিয়ে
হাসপাতালের বিছানায় যন্ত্রনায় কাতরাচ্ছেন।

গৃহবধুর অভিযোগ, ঘটনারদিন তার বাড়িতে রোপনকৃত কলাগাছ থেকে কলা কেটে নিয়ে
যায় প্রবাসী শাহা ইমরান ও তার পরিবার। এনিয়ে বিচার চাইতে ওইদিন রাত নয়টার
দিকে চরচাপলী ইসলামমিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলী আহম্মেদ’র
বাড়িতে গেলে তার স্ত্রী সহকারী শিক্ষিকা নারগীস’র সামনেই জোসনার ওপর
হামলা চালায় ইমরান। এসময় এলোপাথারী গাছের গুড়ির আঘাতে জোসৎনার মাথায়
গুরতর জখম হলে সংজ্ঞাহীন হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। পরে স্থানয়ীরা উদ্ধার
করে কলাপাড়া হাসপাতালে ভর্তি করে। এদিকে আহতের ভাই আকবরের অভিযোগ ঘটনার
পর আমার বোনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার সময় মহিপুর থানা পুলিশকে
রক্তাক্ত অবস্থায় দেখানো হয়। ওসি সাহেব দ্রুত চিকিৎসা নেয়ার পরামর্শ দেন।
কিন্তু পরবর্তীতে আমাদের অভিযোগ গ্রহন করেন নি।

চরচাপলী ইসলামমিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলী আহম্মেদ এ
প্রতিবেদকের কাছে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আমার স্ত্রী’র সামনে
ইমরান জোসৎনার সাথে অন্যায় করেছে। তিনি আরো জানান, আমার স্কুল শিক্ষিকা
স্ত্রী ঘটনার সময় ইমরানকে বাধা দিলে তিনি তা মানেননি।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত শাহা ইমরানের মোবাইল ফোনে একাধিকবার সংযোগ স্থাপনের
চেষ্টা করলে তা সম্ভব হয়নি।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: মনিরুজ্জামান গনমাধ্যমকে
বলেন, পুলিশ পাঠিয়ে গৃহবুধু নির্যাতনের সত্যতা পেয়েছি, আসামী গ্রেফতারে
চেষ্টা অব্যহত আছে। তবে সঠিকভাবে লিখিত অভিযোগ পেলে মামলা গ্রহর করে
আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Facebook Comments

সাম্প্রতিক খবর

Contact Us