শিরোনাম

ঝালকাঠি প্রতিনিধি ॥ প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় গত ২ সেপ্টেম্বর দুপুরে ঝালকাঠির স্বর্ণ কিশোরী খেতাবপ্রাপ্ত কলেজ ছাত্রী নাসরিন আক্তার সারার ওপর হামলা করেছে যুবায়ের আদনান নামের এক যুবক। ঐ দিনই ঝালকাঠি সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছে কলেজ ছাত্রী সারা। কিন্তু ঘটনার ১ সপ্তাহ অতিবাহিত হতে চললেও আসামীকে খুজে পাচ্ছেনা পুলিশ। হামলা ঘটনার বিচার এবং আসামী গ্রেফতারের দাবিতে বৃহস্পতিবার দুপুরে ঝালকাঠি সদর থানা চত্বরে অবস্থান ধর্মঘট করেছে কলেজ ছাত্রী সারা। ‘নারী নির্যাতনে মিমাংসা নয়, বিচার চাই’ এই শ্লোগান সম্বলিত প্লাকার্ড হাতে নিয়ে প্রায় ঘন্টাব্যাপী অবস্থানের পর পুলিশের পক্ষ থেকে সদর থানার দায়িত্বরত কর্মকর্তা এস আই ফিরোজ আগামী ৭২ ঘন্টার মধ্যে আসামী যুবায়ের’কে গ্রেফতারের আশ্বাস দিলে সারা থানা থেকে বাসায় চলে যায়। এসময় প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে না ঘুরে যদি আত্মহত্যা করলেও এই হামলার বিচার পাওয়া যায় তাতেও প্রস্তুত রয়েছে সারা। এমনটাই সাংবাদিকদেরকে বলেছে। এসময় সারা’র বড় বোন আখিনুর বেগম বলেন, যুবায়ের আদনান আমার ঘরে ঢুকে আমার ছোট্ট ছোট্ট দুটি বাচ্চার সামনে সারা’কে যেভাবে মেরেছে তাতে আমার বাচ্চা দুটিও ভয়ে মানসিক ভাবে টর্চার হয়েছে। আমি আমার বোনের উপর হামলাকারীর দ্রুত গ্রেফতার ও বিচার চাই। সারা’র মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সাইফুল বলেন, আমরা তথ্য প্রযুক্তি ব্যাবহার করে আসামী গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছি। এ মামলার আসামী যুবায়ের আদনানের বাবা ঝালকাঠি সদর উপজেলার পোনাবালিয়া ইউনিয়নের মসজিদের ঈমাম জাকির হোসেন বলেন, সারা নামের মেয়েটি আমার ছেলের সাথে সম্পর্ক সৃষ্টিকরে বিয়ের কথা বলে অনেক টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। আমি সে ঘটনার বিবরণ উল্লেখ করে আমি নিজে বাদি হয়ে ঝালকাঠি আদালতে একটি নালিশি মামলা দ্বয়ের করেছি। যাহার তদন্ত চলমান। ##

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : শুক্রবার, অক্টোবর ৯, ২০২০ ৯:৩৪:২৭ পূর্বাহ্ণ
ঝালকাঠিতে হামলাকারীকে গ্রেফতারের দাবীতে থানায় অবস্থান ধর্মঘট করেছে স্বর্ণকিশোরী সারা
ঝালকাঠিতে হামলাকারীকে গ্রেফতারের দাবীতে থানায় অবস্থান ধর্মঘট করেছে স্বর্ণকিশোরী সারা
ঝালকাঠি প্রতিনিধি ॥ প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় গত ২ সেপ্টেম্বর দুপুরে ঝালকাঠির স্বর্ণ কিশোরী খেতাবপ্রাপ্ত কলেজ ছাত্রী নাসরিন আক্তার সারার ওপর হামলা করেছে যুবায়ের আদনান নামের এক যুবক। ঐ দিনই ঝালকাঠি সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছে কলেজ ছাত্রী সারা। কিন্তু ঘটনার ১ সপ্তাহ অতিবাহিত হতে চললেও আসামীকে খুজে পাচ্ছেনা পুলিশ। হামলা ঘটনার বিচার এবং আসামী গ্রেফতারের দাবিতে বৃহস্পতিবার দুপুরে ঝালকাঠি সদর থানা চত্বরে অবস্থান ধর্মঘট করেছে কলেজ ছাত্রী সারা। ‘নারী নির্যাতনে মিমাংসা নয়, বিচার চাই’ এই শ্লোগান সম্বলিত প্লাকার্ড হাতে নিয়ে প্রায় ঘন্টাব্যাপী অবস্থানের পর পুলিশের পক্ষ থেকে সদর থানার দায়িত্বরত কর্মকর্তা এস আই ফিরোজ আগামী ৭২ ঘন্টার মধ্যে আসামী যুবায়ের’কে গ্রেফতারের আশ্বাস দিলে সারা থানা থেকে বাসায় চলে যায়। এসময় প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে না ঘুরে যদি আত্মহত্যা করলেও এই হামলার বিচার পাওয়া যায় তাতেও প্রস্তুত রয়েছে সারা। এমনটাই সাংবাদিকদেরকে বলেছে। এসময় সারা’র বড় বোন আখিনুর বেগম বলেন, যুবায়ের আদনান আমার ঘরে ঢুকে আমার ছোট্ট ছোট্ট দুটি বাচ্চার সামনে সারা’কে যেভাবে মেরেছে তাতে আমার বাচ্চা দুটিও ভয়ে মানসিক ভাবে টর্চার হয়েছে। আমি আমার বোনের উপর হামলাকারীর দ্রুত গ্রেফতার ও বিচার চাই। সারা’র মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সাইফুল  বলেন, আমরা তথ্য প্রযুক্তি ব্যাবহার করে আসামী গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছি।
এ মামলার আসামী যুবায়ের আদনানের বাবা ঝালকাঠি সদর উপজেলার পোনাবালিয়া ইউনিয়নের মসজিদের ঈমাম জাকির হোসেন বলেন, সারা নামের মেয়েটি আমার ছেলের সাথে সম্পর্ক সৃষ্টিকরে বিয়ের কথা বলে অনেক টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। আমি সে ঘটনার বিবরণ উল্লেখ করে আমি নিজে বাদি হয়ে ঝালকাঠি আদালতে একটি নালিশি মামলা দ্বয়ের করেছি। যাহার তদন্ত চলমান।
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Facebook Comments

সাম্প্রতিক খবর