শিরোনাম

বরিশালে কওমি মাদ্রাসার নুরানি বিভাগের দুই পক্ষে সংঘর্ষে আহত ১০ হাফেজ

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : মঙ্গলবার, নভেম্বর ২, ২০২১ ৯:৩৪:১৮ পূর্বাহ্ণ
বরিশালে কওমি মাদ্রাসার নুরানি বিভাগের দুই পক্ষে সংঘর্ষে আহত ১০ হাফেজ
বরিশালে কওমি মাদ্রাসার নুরানি বিভাগের দুই পক্ষে সংঘর্ষে আহত ১০ হাফেজ

বরিশালের গৌরনদী উপজেলার বার্থী উলুমে দ্বীনিয়া কওমি মাদ্রাসার নুরানি বিভাগের এক শিক্ষককে অবরুদ্ধ ও কিতাব বিভাগের ছাত্রদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে।

হামলায় কেতাব বিভাগের  হাফেজ ১০ ছাত্র আহত হয়েছে। এতে মাদ্রাসায় ছাত্রদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে কিতাব বিভাগের ক্লাস অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ।

মাদ্রাসার প্রত্যক্ষদর্শী শিক্ষক ও আহত ছাত্ররা জানান, উপজেলার বার্থী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান শাহ্জাহান প্যাদার ভাগ্নে ও বার্থী কওমি মাদ্রাসার  নুরানি বিভাগের শিক্ষক হাফেজ মানিক বেপারী ব্যঙ্গ করে কেতাব বিভাগের ছাত্রদের প্রায়ই ডাকেন এবং অসদাচরণ করে আসছিলেন। ব্যঙ্গ করে ডাকতে নিষেধ করায় শিক্ষক হাফেজ মানিক বেপারী ক্ষিপ্ত হয়ে সম্প্রতি কেতাব বিভাগের ছাত্র মো. শাহ্জালাল, মো.  মাহামুদকে পিটিয়ে আহত করেছিলেন।

মাদ্রাসার মুহ্তামিম মুফতি আমিনুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,আমি এখন অসহায়।মাদ্রাসার পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও বার্থী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান শাহ্জাহান প্যাদার নির্দেশে আমি কেতাব বিভাগের ক্লাস অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছি।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Facebook Comments

সাম্প্রতিক খবর

Contact Us